http://igeneration.com.bd/wp-content/uploads/2021/04/মার্কিন-নৌবাহিনীতে-হিজাবধারী-মুসলিম-নারী.jpg

মার্কিন নৌবাহিনীতে হিজাবধারী মুসলিম নারী

ইসলাম

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নৌবাহিনীতে চাকরিরত একজন আমেরিকান মুসলিম নারীকে হিজাব পরার অনুমোদন দেয়ার পাশাপাশি তাকে চিফ পেটি অফিসার পদে পদোন্নতি দেয়া হয়েছে।

এ নৌ-চিফ পেটি অফিসারের নাম জেনেভ্রা এম উইলসন। তাকে পদোন্নতির পাশাপাশি হিজাব পরিধানের অনুমোদন অব্যাহত রাখায় মার্কিন নৌবাহিনীর রিজার্ভকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন আমেরিকান-ইসলামিক রিলেশন কাউন্সিলের জর্জিয়ার নির্বাহী পরিচালক এডওয়ার্ড আহমেদ মিচেল।

এক বিবৃতিতে তিনি বলেন, উইলসন নিজের অধিকার রক্ষা করতে পেরেছে। অন্যান্য ধর্মানুসারীদের জন্যও উইলসন অনুপ্রেরণা হিসেবে কাজ করবে। আমেরিকান মুসলমানদের স্বাধিকার রক্ষায় উইলসনের প্রতিটি কীর্তি অসাধারণ ভূমিকা রাখবে।

এ বছরের ২৭শে জুলাই সিআইআর-জর্জিয়ার নৌবাহিনীর কাছে উইলসন হিজাব পরিধানের অনুমোদন অব্যাহত রাখার আবেদন করেন। আনুষ্ঠানিক অনুমতি মিলতে কয়েক মাস সময় লেগে যায়। তবে অনুমোদনের জন্য অপেক্ষাকালীন উইলসন হিজাব পরিধান অব্যাহত রাখেন। শেষ পর্যন্ত নভেম্বর মাসে তিনি আনুষ্ঠানিক অনুমোদন লাভ করেন।

হিজাব পরিহিত অবস্থায় চিফ পেটি অফিসার পদে উন্নতি লাভকারী মার্কিন নৌবাহিনীর ইতিহাসে উইলসন প্রথম মুসলিম নারী। ২০১৭ সালে মার্কিন মুসলিম পুরুষ সেনাদের দাড়ি-পাগড়ির পাশাপাশি মুসলিম নারী সেনাদের হিজাব পরার অনুমতি দেয়া হয়।

বর্তমানে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক বাহিনীতে প্রায় পাঁচ হাজার মুসলিম সেনা কর্মরত রয়েছেন। আমেরিকার বৈপ্লবিক যুদ্ধে (প্রতিষ্ঠা-যুদ্ধে) অনেক মুসলিম সৈনিক নিজেদের জীবন উৎসর্গ করেন। তাতে মুসলিম সৈন্য ইউসুফ বেন আলী ও ব্যাম্পেট মুহাম্মদের অবদান অনস্বীকার্য। আর আমেরিকার গৃহযুদ্ধে ক্যাপ্টেন মুসা ওসমান এবং দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে অসংখ্য মুসলিম সৈন্য মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষে বেশ অবদান রেখেছেন।