http://igeneration.com.bd/wp-content/uploads/2021/05/the-teacher-cut-his-sisters-hair-because-he-wanted-his-fathers-property.jpg

বাবার সম্পত্তি চাওয়ায় শিক্ষক বোনের চুল কেটে দিলো আপন ভাই

সারা বাংলা

বগুড়া সোনাতলা উপজেলার বালুয়া ইউনিয়নের আটকড়িয়া গ্রামে বাবার সম্পত্তি চাওয়ায় শিক্ষক বোনের মাথার চুল কেটে দিয়েছেন আপন বড় ভাই স্কুলশিক্ষক গোলাম রব্বানী ও তার স্ত্রী। এ সময় ভাই-ভাবির হাত থেকে বাঁচতে ৯৯৯ এ কল করে নিজেকে রক্ষা করেন ওই শিক্ষক।

বৃহস্পতিবার (২০ মে) সকালে ওই গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। সোনাতলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রেজাউল করিম রেজা এ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

ভুক্তভোগী শিক্ষক জানান, তাদের বাবা বীর মুক্তিযোদ্ধা ছিলেন। ২০১৭ সালে বাবা মারা যাওয়ার পর থেকে বড় ভাই গোলাম রব্বানী ও ছোট ভাই গোলাম রাসুল বাবার সম্পত্তি ভোগ করতে থাকে। বাবা বেঁচে থাকাকালীন বড় ভাই বাড়ির বাইরে থাকতেন। বাবা মারা যাওয়ার পর বাড়িতে এসে উঠেন তিনি। এরপর থেকে শুরু হয় নির্যাতন। দুই ভাই মৌখিকভাবে ১১ শতকের ওপর বাড়ির অংশ ভাগ করে নেয়।

তিনি আরও জানান, বাবার বাড়ি থেকে স্কুলে যাতায়াত করায় তাকে বাড়ি থেকে বের করে দেয়ার চেষ্টা করছিলেন আপন দুই ভাই। বেশ কয়েকদিন আগে তার এক ভাই তার বাথরুম বন্ধ করে দেয়। পরে তার প্রয়োজনীয় কাজ পাশের বাড়িতে গিয়ে করেন তিনি। বৃহস্পতিবার (২০ মে) সকাল ৮টার দিকে বাড়ির টিউবওয়েলে বাসনপত্র পরিস্কার করার সময় গোলাম রব্বানী ও তার স্ত্রী পপি বেগম তাকে নানাভাবে গালিগালাজ শুরু করেন।

এ সময় তার ভাইয়ের কাছে বাবার সম্পত্তির ভাগ চান ভুক্তভোগী শিক্ষক। সম্পত্তি দিলে তিনি অন্যত্র চলে যাবেন। এ কথা বলার পর তার ভাই-ভাবি মিলে তাকে মারপিট করেন এবং মাথার চুল কেটে দেন। এ সময় তিনি থানা পুলিশের সহায়তা নিতে চাইলে ভাই বাড়ির মূল দরজায় তালা ঝুলিয়ে দেয়া হয়। পরে তিনি ৯৯৯ নাম্বারে মোবাইল করে সহায়তা চান। পরে এ সংবাদ পেয়ে সকাল ১০টার দিকে সোনাতলা থানার এসআই আব্দুর রহিম ও পুলিশ সদস্যরা ভুক্তভোগী শিক্ষককে বাড়ি থেকে উদ্ধার করে।

এ বিষয়ে সোনাতলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রেজাউল করিম রেজা বলেন, এটি খুব দুঃখজনক। এ বিষয়ে ভুক্তভোগীর একটি অভিযোগের প্রস্তুতি চলছে। অবশ্যই আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Tagged