গোপালগঞ্জে গাছের সঙ্গে মোটরসাইকেলের ধাক্কা, ২ ভাই নিহত

সারা বাংলা

গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়া উপজেলায় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাছের সঙ্গে মোটরসাইকেলের ধাক্কায় দুই চাচাতো ভাই নিহত হয়েছেন।

নিহতরা হলেন- নিহত মুবিন শিকদার (২০) উপজেলার ঘাঘরকান্দা গ্রামের ফারুক শিকদারের ছেলে এবং স্বাধীন শিকদার (১৭) বর্ষাপাড়া গ্রামের মিরাজ শিকদারের ছেলে। তারা সম্পর্কে চাচাতো ভাই।

বুধবার সন্ধ্যায় উপজেলা স্বাস্থ্যকেন্দ্রের কর্তব্যরত চিকিৎসক একজনকে মৃত ঘোষণা করেন এবং অন্যজনের রাত ১০টার দিকে  গোপালগঞ্জ সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থেকে মৃত্যু হয়।

এর আগে বিকালে গোপালগঞ্জ-কোটালীপাড়া সড়কের তারাশী বাসস্ট্যান্ডে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

কোটালীপাড়া থানার ওসি মো. আমিনুল ইসলাম জানান, গোপালগঞ্জগামী একটি মোটরসাইকেল তারাশী বাসস্ট্যান্ডে একটি ইজিবাইকে সাইট দিতে গিয়ে রাস্তার পাশে থাকা গাছের সঙ্গে গিয়ে ধাক্কা লাগে। এতে মোটরসাইকেলচালক মুবিন শিকদার ও তার চাচাতো ভাই স্বাধীন শিকদার গুরুতর আহত হন।

তাদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্যকেন্দ্রে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মুবিন শিকদারকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।

অপরদিকে স্বাধীন শিকদারের শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে চিকিৎসকদের পরামর্শে গোপালগঞ্জ সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এখানে ওই দিন রাত সাড়ে ১০টায় স্বাধীন শিকদার চিকিৎসারত অবস্থায় মারা যান।

বর্ষাপাড়া গ্রামের ইউপি সদস্য লায়েকুজ্জামান বিশ্বাস বলেন, মুবিন শিকদার ও স্বাধীন শিকদার খুব ভদ্র ও মেধাবী ছিল। এদের মৃত্যুতে আমরা খুব শোকাহত।

নিহত মুবিন শিকদার ও স্বাধীন শিকদারের ছোট চাচা শামিউল শিকদার বলেন, আমার ভাতিজা মুবিন শিকদার সরকারি মেরিন ইঞ্জিনিয়ার কলেজ থেকে ষষ্ঠ সেমিস্টারের পরীক্ষা দিয়েছিল।

এ ছাড়া স্বাধীন শিকদার কোটালীপাড়া শেখ লুৎফর রহমান আদর্শ সরকারি কলেজ থেকে এ বছর এইচএসসি পরীক্ষা দেওয়ার কথা।

Tagged