http://igeneration.com.bd/wp-content/uploads/2021/04/ঝিনাইদহে-৪০-ইঞ্চির-বর-আর-৪২-ইঞ্চি-কনের-বিয়ে-চিন্তা-মুক্ত-হলো-দুই-পরিবার.jpg

ঝিনাইদহে ৪০ ইঞ্চির বর আর ৪২ ইঞ্চি কনের বিয়ে, চিন্তা মুক্ত হলো দুই পরিবার

সারা বাংলা

বয়স ৩০ হলেও উচ্চতায় মাত্র ৪০ ইঞ্চি আব্বাস মণ্ডল। অপরদিকে মিম খাতুনের উচ্চতা ৪২ ইঞ্চি। দুজনের বিয়ে নিয়ে চিন্তায় ছিলেন দুই পরিবার। অবশেষে বহু প্রতীক্ষার অবসান ঘটিয়ে বিয়ে হলো এই দুইজনের। শুক্রবার রাতে তাদের বিয়ে হয় ঝিনাইদহের শৈলকুপার আউশিয়া গ্রামে।

ক্ষুদ্রাকার এই দুইজনের বিয়ে হওয়ায় খুশী তাদের পরিবার। এদিকে তাদের বিয়ে নিয়ে এলা’কাজুড়ে ব্যাপক তোলপাড় শুরু হয়েছে। নব দম্পতিকে দেখতে সকাল থেকেই বরের বাড়িতে ভিড় করছে মানুষ। অপরদিকে নব দম্পতি আব্বাস ও মিম জানান, আকৃতিতে ছোট হলেও বিয়ে নিয়ে তারা খুশি।

বর আব্বাস মণ্ডলের মা সাহিদা বেগম জানান, তার ছোট ছেলের উচ্চতা স্বাভাবিক। তার বিয়ে হয়েছে কয়েক বছর আগে। কিন্ত বড় ছেলে আব্বাস বামন আকৃতির হওয়ায় তাকে নিয়ে চিন্তা করতেন তারা। সেই দুশ্চিন্তার এবার অবসান ঘটল। একই উপজেলার লক্ষন্দিয়া গ্রামের ইউনুস আলী মোল্যার বড় মেয়ে মিম খাতুনকে তারা ছেলের বউ হিসেবে পছন্দ করতেন। শুক্রবার রাতে বরযাত্রী নিয়ে তারা কনের বাড়িতে যান। সেখানে আব্বাস- মিমের বিয়ে হয়। রাতেই নববধূকে বাড়িতে নিয়ে এসেছেন সাহিদা বেগম।

সাহিদা বেগম বলেন, ছেলের বিয়ে দিতে পেরে তারা খুশি। বউকে নিয়ে ছেলে সুখী হবে এটাই এখন আশা। স্থানীয় লোকেরা জানান, ব্যাতিক্রমী এ নব দম্পতিকে দেখতে তারা আব্বাস মন্ডলের বাড়িতে যান এবং তাদের হাতে উপহার তুলে দেন।

Tagged