সফল উদ্যোক্তা হবার পূর্ব শর্ত সমূহ !

বিজনেস

উদ্যোক্তা এবং ব্যবসায়ী দুইটি ভিন্ন বিষয়বস্তু। উদ্যোক্তা থেকে ব্যবসায়ী  হওয়া যায় কিন্তু  ব্যবসায়ী হলেই  উদ্যোক্তা হওয়া যায় না। এবং উদ্যোক্তার চেয়ে ব্যবসায়ী হওয়া অনেকটাই সহজ।

আজকের আমরা আলোচনা করবো একজন সফল  উদ্যোক্তা হবার পূর্ব শর্ত সমূহঃ

একজন উদ্যোক্তা হতে  সফল উদ্যোক্তাদের গুণাগুন  অর্জন করতে হবে

একজন সফল উদ্যোক্তার মধ্যেই অনেক গুনবলী বিদ্যামান থাকে। প্রায় সকল উদ্যোক্তা মধ্যে কিছু গুনবলীর মিল থাকে। আপনাকে প্রথমেই সেই সকল গুণাবলী নিজের আয়ত্তে করতে হবে। যেমনঃ ধৈর্য, শৃঙ্খলা, আত্মবিশ্বাস, কাজের প্রতি আগ্রহ এবং সমস্যা সমাধানের দক্ষতা।

পূর্ব-পরিকল্পনা করে কাজ করা।

সফল উদ্যোক্তাকে যথেষ্ট ঝুঁকি নিতে হয়। ঝুঁকির মধ্যে রয়েছে মানসিক, শারীরিক এবং আর্থিক ঝুঁকি। প্রথমত একজন উদ্যোক্তা  ঝুঁকি গ্রহন করে, সে তার পূর্ব-পরিকল্পনা  অনুযায়ী ঝুঁকি গ্রহন করে। উদ্যোক্তা তার নিজের আইডিয়াকে প্রতিষ্ঠা করতে তখন তার ব্যবসার পরিকল্পানায় গুরুত্ব দেয়।

নতুন ক্রেতাদের বা বিক্রেতাদের সাথে যোগাযোগ বাড়াতে হবে।

উদ্যোক্তা হিসাবে সফল হতে চাইলে আপনাকে  নতুন নতুন মানুষদের সাথে সুসম্পর্ক গড়ে তুলতে হবে। আপনি যেই সেক্টরে ব্যবসা করতে চান সেই সেক্টরে যারা ব্যবসা করে তাদের সাথে সু- সম্পর্ক গড়ে তুলতে হবে।

নতুনত্ব গ্রহন করার মানষিকতা থাকতে হবে।

আপনাকে ধরে নিতে হবে ,আপনি আপনার ব্যবসায় সকল কিছু নিয়ে ধারনা নেই । নিজের ভালোলাগা বা সুবিধার যায়গা ছেড়ে দিতে হবে ,ক্রেতার চাহিদাকে গুরুত্ব দিতে হবে এবং নতুনত্বকে গ্রহন করতে হবে। সময়ের  সাথে ব্যবসার ধরনে নতুনত্ব আনতে হবে।

সময়ের সঠিক ব্যবহার

সময়ের সঠিক ব্যবহার একটি দক্ষতা যা একজন উদ্যোক্তাকে সফল হওয়ার ক্ষেতে এগিয়ে রাখতে পারে।সফল হতে হলে বিশেষক্ষেত্রে টাকার চেয়েও সময়কে বেশী গুরুত্ব দিতে হবে। সকল কাজ নিজে না করে, দক্ষ ব্যাক্তিতে কাজে নিয়োগ দিতে হবে।

হিসাব নিকাশ সম্পর্কে স্পষ্ট ধারনা থাকতে হবে।

আপনাকে হিসাব- নিকাশ সম্পর্কে দক্ষ হতে হবে। ব্যবসায় সকল আয়-ব্যয় নির্ভূল ভাবে লিখে রাখতে হবে।  যেই ব্যবসা করতে চান সেই ব্যবসার ট্যাক্স সম্পর্কে জানতে নিতে হবে।